1. khyrulislam2@gmail.com : অনলাইন ডেস্ক : অনলাইন ডেস্ক
  2. mbtvnews24@gmail.com : editor :
বগুড়ায় ‘শস্যচিত্রে বঙ্গবন্ধু’ জাতীয় সেমিনারে কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক - MB TV
২৭শে নভেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

বগুড়ায় ‘শস্যচিত্রে বঙ্গবন্ধু’ জাতীয় সেমিনারে কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক

অনলাইন ডেস্ক
  • প্রকাশিত রবিবার, ১৪ মার্চ, ২০২১

আব্দুল ওয়াদুদ ও আমিনুল ইসলাম হিরো (শেরপুর, বগুড়া) :

 

অর্থনীতির মূল চালিকাশক্তি কৃষি। আর কৃষি নির্ভরশীল একটি দেশের নাম বাংলাদেশ। কৃষি এই দেশে সম্ভাবনাময় একটি শিল্প। তাই এই খাতকে লাভজনক করতে কাজ করছি। কৃষিকে আধুনিকায়ন করার জন্য চেষ্টা করা হচ্ছে। কেননা কৃষির উন্নয়ন হলেই দেশের সামগ্রীক উন্নয়ন হবে।

রবিবার (১৪মার্চ) বেলা চারটায় বগুড়া পল্লী উন্নয়ন একাডেমী মিলনায়তনে আয়োজিত শস্যচিত্রে বঙ্গবন্ধু ‘বাংলাদেশে কৃষি বিপ্লব শেখ মুজিব থেকে শেখ হাসিনা’ শীর্ষক জাতীয় সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক এমপি এসব কথা বলেন।

ন্যাশনাল এগ্রিকেয়ারের সহযোগিতায় কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর ও শস্যেচিত্রে বঙ্গবন্ধু জাতীয় বাস্তবায়ন পরিষদ এই সেমিনারের আয়োজন করেন। এতে মূল প্রবন্ধ পাঠ করেন গ্লোবাল বিশ^বিদ্যালয়ের উপাচার্য ড. জাহাঙ্গীর আলম। কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক আসাদুল্লাহ’র সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক আরও বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সারাজীবন কৃষকের কল্যাণে কাজ করেছেন। তাই কৃষি ও কৃষকের বঙ্গবন্ধুকে শস্যেচিত্রের মাধ্যমে ফুটিয়ে তোলা হয়েছে।

গণস্বাস্থ্যের ট্রাস্টি ড. জাফরুল্লাহ চৌধুরীকে উদ্দেশ্যে করে কৃষিমন্ত্রী আরও বলেন, একটি মহল দেশকে অস্থিতিশীল করতে চায়। এজন্যই প্রতিবেশি বন্ধু রাস্ট্রের সঙ্গে সম্পর্কের অবনতি ঘটানোর ষড়যন্ত্রে লিপ্ত রয়েছে। ধর্মকে ব্যবহার করে ভারতবিরোধী প্রচার-প্রচারণা চালাচ্ছেন। এমনকি দেশের ইতিহাস বিকৃতি করছে। স্বাধীনতাবিরোধী ওই চক্রের নানামুখি ষড়যন্ত্র সম্পর্কে সবাইকে সজাগ থাকার আহবান জানান কৃষিমন্ত্রী।
উক্ত সেমিনারে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন কৃষি মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব মেসবাহুল ইসলাম, কৃষি বিশ^বিদ্যালয়ের উপাচার্য লুৎফুল হাসান, জাতীয় সংসদ সদস্য সাহাদারা মান্নান, বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা কাউন্সিলের নির্বাহী চেয়ারম্যান ড শেখ মোহাম্মদ বখতিয়ার, কৃষি উন্নয়ন কর্পোরেশনের চেয়ারম্যা ড. অমিতাভ সরকার, কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের সাবেক মহাপরিচালক হামিদুর রহমান, শস্যেচিত্রে বঙ্গবন্ধু জাতীয় পরিষদের সদস্য সচিব কেএম মোস্তাফিজুর রহমান।

 

এছাড়া অন্যদের মধ্যে বগুড়ার জেলা প্রশাসক জিয়াউর হক, জেলার পুলিশ সুপার আলী আশরাফ ভূঞ্রা, আওয়ামীলীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক সাখাওয়াত হোসেন সফিক, জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক রাগেবুল আহসান রিপু প্রমূখ বক্তব্য রাখেন।

এদিকে রবিবার বেলা এগারোটার দিকে বগুড়ার শেরপুর উপজেলার ভবানীপুর ইউনিয়নের নিভৃত পল্লী বালেন্দা গ্রামের মাঠে একশ’ বিঘা জমির গাঢ় বেগুণী ও সবুজ ক্যানভাসে আঁকা বিশে^র সর্ববৃহৎ বঙ্গবন্ধুর শস্যচিত্র পরিদর্শন করেন কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক এমপি।

এসময় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা লিয়াকত আলী সেখ, জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (শেরপুর সার্কেল) গাজিউর রহমান, শেরপুর থানার ওসি শহিদুল ইসলাম শহিদ ফুলেল শুভেচ্ছা জানান। এরপর কৃষিমন্ত্রী বিশ্বের সর্ববৃহৎ জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর এই শস্যচিত্রটি পরিদর্শন করেন।

পরে বগুড়া জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি মজিবর রহমান মজনুর সভাপতিত্বে আয়োজিত মতবিনিময়সভায় কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক বলেন, ফসলের মাঠে ফুটিয়ে তোলা জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতি দেখে আগামি প্রজন্ম তাঁর আদর্শে অনুপ্রাণিত হবে বলে মন্তব্য করেছেন গণপ্রজান্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক এমপি। সেইসঙ্গে অসাধারণ এই শিল্পকর্মটি অচিরেই গিনেস ওয়াল্ড রেকর্ডসে অন্তর্ভুক্ত হয়ে বাঙালির নতুন ইতিহাস সৃষ্টি করবে। এছাড়া বঙ্গবন্ধুর আদর্শে সমৃদ্ধির পথে এগিয়ে যাচ্ছে বাংলাদেশ।

এসময় জেলা ও উপজেলা প্রশাসনের বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তারা ছাড়ও বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের কেন্দ্রীয় এবং জেলা-উপজেলার বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত: বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষ্যে জাতীয় পরিষদের উদ্যোগে এবং বেসরকারি কোম্পানি ন্যাশনাল এগ্রিকেয়ারের সহযোগিতায় বগুড়ার শেরপুরের ফসলি মাঠে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতি তৈরী করা হয়েছে। যার নাম দেওয়া হয়েছে ‘শস্যচিত্রে বঙ্গবন্ধু’। বিশ্বের সর্ববৃহৎ শস্যচিত্র হবে এটি। কারণ সর্বশেষ বিগত ২০১৯সালে চিনে তৈরী শস্যচিত্রটির আয়তন ছিল ৮লাখ ৫৫হাজার ৭৮৬বর্গফুট। আর এই শস্যচিত্রে বঙ্গবন্ধু আয়তন ১২লাখ ৯২ হাজার বর্গফুট। শস্যচিত্রের দৈর্ঘ্য ৪শ’ মিটার এবং প্রস্থ ৩শ’ মিটার। এছাড়া শস্যচিত্রে বঙ্গবন্ধুর প্রতিচ্ছবি তৈরি করার জন্য গিনেজ ওয়াল্ড রেকর্ডসের শর্ত অনুযায়ী দুই ধরনের ধানের চারা লাগানো হয়েছে। গাঢ় বেগুণী ও সবুজ ধানের চারায় ফুটে উঠেছে জাতির জনকের সুস্পষ্ট অবয়ব।

এ সম্পর্কিত আরো সংবাদ
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০৬ - ২০২১
Developed By Bongshai IT